surmavoice24.com
সিলেটশুক্রবার, ১৪ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, দুপুর ২:৪৬
আজকের সর্বশেষ সবখবর

সমাজসেবা অধিদপ্তর কোম্পানীগঞ্জে গত পাঁচ বছরে ৪৫ কোটি টাকার ভাতা দিয়েছে


নভেম্বর ৬, ২০২৩ ৪:১১ অপরাহ্ণ
Link Copied!

শের তারিকুল ইসলাম: প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী ইমরান আহমদ বলেছেন, ‘আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় থাকায় মানুষ উন্নয়নের সুফল ভোগ করছে। বিভিন্ন ভাতা ও নানা সুযোগ-সুবিধা পাচ্ছে। বিশেষ করে বয়স্ক নারী-পুরুষ, বিধবা ও স্বামী নিগৃহীতা এবং প্রতিবন্ধীরা ভাতা পাচ্ছে। উন্নয়নের এই অগ্রযাত্রা ধরে রাখতে শেখ হাসিনাকে ক্ষমতায় রাখতে হবে।

রোববার (৫ নভেম্বর) সিলেটের কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা পরিষদ মাঠে সরকারের বিভিন্ন পর্যায়ের সুবিধাভোগীদের সাথে মতবিনিময় সভায় তিনি প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।

তিনি আরও বলেন, অনেক বক্তারা বলেন আমাকে নির্বাচিত করতে হবে। আমি কিন্তু এই কথার সাথে একমত না। আমার কথা হল,আমাদের লক্ষ্য থাকা উচিত শেখ হাসিনাকে প্রধানমন্ত্রী বানানো। এটাই কিন্তু আমাদের মাথার ভিতর চিন্তা-ভাবনা থাকা উচিত। শেখ হাসিনাকে যদি আপনারা প্রধানমন্ত্রী বানাতে চান, নৌকা মার্কার যেই প্রতিনিধি এখান থেকে আপনারা পাঠাবেন সেই কিন্তু আপনাদের প্রতিনিধিত্ব করবেন। আপনাদের কাজ যেটা আছে,আপনাদের প্রয়োজন যেটা সেটা কিন্তু হাসিল করে নিয়ে আসতে পারবে।

সিলেটের কোম্পানীগঞ্জে সরকারের বিভিন্ন কর্মসূচির উপকার ভোগীদের সাথে মতবিনিময় কালে সাথে রোববার উপজেলা প্রশাসন কতৃক আয়োজিত এক সভায় প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী ইমরান আহমদ এ কথা গুলো বলেন। এ সময় তিনি আরও বলেন, আমি সিলেট-৪ আসন থেকে ৬ বার নির্বাচিত হয়েছি। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী আমাকে মন্ত্রী বানিয়েছেন। একটা কথা মনে রাখতে হবে, পরিবর্তন যদি এই পর্যায়ে আনি। আওয়ামী লীগ সরকার যদি আবারও গঠিত হয় তবে পরিবর্তিত সেই ব্যক্তিকে কিন্তু ৬ বার নির্বাচিত হতে হবে। তারপর তাকে এই এলাকার উন্নয়ন করতে হবে।

বক্তব্যে এক পর্যায়ে ইমরান আহমদ বলেন, আপনাদের কর্মসংস্থানের যে ব্যবস্থা হয় এটা আমি চেষ্ঠা করবো। আপনারা জীবিকা নির্বাহ করতে পারেন এটার কিন্তু একটা ব্যবস্থা হবে। প্রধানমন্ত্রী আপনাদের কি দেই নাই? গত পাঁচ বছরে ৪৫ কোটি টাকা শুধু সমাজ সেবা খাতেই কোম্পানীগঞ্জে এসেছে। এসব ভাতা কিন্তু শেখ হাসিনা সরকারই দিয়েছে। অন্য কোনো সরকারের আমলে এসব ভাতা দেইনাই। ‘আওয়ামী লীগ আবার ক্ষমতায় না এলে সব ভাতা বন্ধ হয়ে যাবে। ৯৬ সালে শেখ হাসিনার চালু করা অনেক প্রকল্প বিএনপি ক্ষমতায় এসে বন্ধ করে দিয়েছিল। বীর মুক্তিযোদ্ধাদের ভাতা ৫ শত টাকা থেকে ২০ হাজার টাকায় উন্নীত করা হয়েছে। তাই সাধারণ মানুষের উন্নয়ন এবং দেশের উন্নয়নে শেখ হাসিনার বিকল্প নেই। আগামীতেও নৌকা প্রতীকে ভোট দিয়ে দেশের উন্নয়ন অগ্রযাত্রা অব্যাহত রাখতে হবে।’ এক পর্যায়ে তিনি বলেন, আগামীতে কাকে নির্বাচিত করবেন সিদ্ধান্ত আপনাদের। যারা ক্ষমতায় আসতে চায় তারা কাকে প্রধানমন্ত্রী বানাবেন? যিনি প্রধানমন্ত্রী হতে চায় তার সাথে শেখ হাসিনার তুলনা করবেন। পার্থক্য পেয়ে যাবেন। আমি জনতার উপর আস্তা রাখি। আপনাদের সিদ্ধান্তের উপর আমার আস্তা রাখি। কোম্পানীগঞ্জের উন্নয়নের কথা নাইবা বলি। এসব আপনাদের সামনেই আছে। উপজেলায় শতভাগ বিদ্যুতায়নের আওতায় এসেছে। ভূমি ও গৃহহীন মুক্ত হয়েছে। এরপরেও যদি কেউ ভূমিহীন থাকে তবে আমাকে বলবেন। চাঁনপুর ব্রীজ ও রামাইল ব্রীজ প্রক্রিয়াধীন।

পাথর কোয়ারি খুলে দেওয়ার বিষয়ে কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান শামিম আহমদের দাবীর প্রেক্ষিতে মন্ত্রী ইমরান আহমদ বলেন, যেহেতু সরকারের একটা সিদ্ধান্ত আছে। পরিবেশগত কারনে উনারা কোয়ারি বন্ধ রেখেছে। এটা ইমরান আহমদ কিন্তু বন্ধ করে নাই। এই কাজটা কিন্তু জ্বালানী মন্ত্রণালয়ের কাজ। আমি কিন্তু বার বার চেষ্ঠা করেছি এটা খোলে দেওয়া হোক।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার লুসিকান্ত হাজংয়ের সভাপতিত্বে ও উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক অখিল বিশ্বাসের পরিচালনায় অনুষ্ঠানে কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান শামীম আহমদ, জৈন্তাপুর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান কামাল আহমদ, কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আলী আমজদ, সাধারণ সম্পাদক আপ্তাব আলী কালা মিয়া, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও জেলা আওয়ামী লীগ সদস্য জাহাঙ্গীর আলম, ইয়াকুব আলী ও উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা আব্দুল মতিন বক্তব্য দেন।

উপস্থিত ছিলেন উপজেলা পরিষদের সাবেক নারী ভাইস চেয়ারম্যান ও উপজেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সভানেত্রী নাসরিন জাহান ফাতেমা, কোম্পানীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হিল্লোল রায়, উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি হুমায়ুন কবির মছব্বির,১নং ইসলামপুর পশ্চিম ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান শাহ জামাল উদ্দিন, ১নং ইসলামপুর পশ্চিম ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হাজী জিয়াদ আলী, ২নং পূর্ব ইসলামপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আলমগীর আলম, ৫নং উত্তর রণিখাই ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ফয়জুর রহমান ও ৬ নং দক্ষিণ রণিখাই ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ইকবাল হোসেন ইমাদ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

শেষে মন্ত্রী উপজেলার ক্ষুদ্র ও প্রান্তিক কৃষকদের মাঝে বিনামূল্যে বীজ, সার ও বিভিন্ন অনুদান প্রদান করেন। পরে তিনি সাদা পাথর হোটেল এন্ড রিসোর্টে নতুন ভবনের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন করেন।

এর আগে সকালে ইমরান আহমদ কারিগরি কলেজের নির্মাণাধীন ভবন এবং মুজিব কেল্লা নির্মাণ কাজের অগ্রগতি পরিদর্শন করেন। আরএইচডি-কোম্পানীগঞ্জ-হাজী হাছন আলী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় রাস্তার মেরামত কাজের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন করেন।

এছাড়াও আরও উপস্থিত ছিলেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ প্রচার সম্পাদক সাইফুল ইসলাম, উপজেলা তাঁতী লীগের সভাপতি ও কোম্পানীগঞ্জ প্রেসক্লাবের সিনিয়র সহ সভাপতি শের তারিকুল ইসলাম, উপজেলা যুবলীগের আহবায়ক হাজী আলা উদ্দিন, যুগ্ম আহবায়ক আব্দুর রহমান, রাসেল আহমদ, উপজেলা তাঁতী লীগের সহ সভাপতি আল হাদি, হাসান আহমেদ, সাচ্চা মিয়া,সায়েম আহমদ, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সঞ্জয় সরকার, ২নং পূর্ব ইসলামপুর ইউনিয়ন স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি আব্দুস ছালাম আজাদ, ২ নং পূর্ব ইসলামপুর ইউনিয়ন তাঁতী লীগের সভাপতি আজিজুল হক, সাধারণ সম্পাদক পলাশ দেবনাথ,যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক বিশ্বজিৎ দেবনাথ। তেলিখাল ইউনিয়ন তাঁতী লীগ নুর মোহাম্মদ, উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি ওমর আলী, সিনিয়র সহ সভাপতি রুবেল আহমেদ, সাধারণ সম্পাদক শাহ আলম স্বাধীন প্রমুখ।

কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো। বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।